issue_cover
x

কম্পিউটার ব্যবহার করতে তো আমরা প্রায় সকলেই এখন অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছি। নানা খুঁটিনাটি জানতে গেলেও আমরা জিজ্ঞেস করে নিই ইন্টারনেটকে। ভাবো তো, তোমার সর্দিকাশি হল, তুমি ইন্টারনেটকে জিজ্ঞেস করলে, আর সে তোমায় বলে দিল এখন তোমার কী করা উচিত। তোমরা হয়তো শুনে বলবে, ধুর! তা আবার সম্ভব নাকি! সামনাসামনি না দেখেই কম্পিউটার বলে দেবে কী করা উচিত! তাই আবার হয় নাকি! কিন্তু, এই জিনিসটাই সম্ভব করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এক সংস্থা। তারা ‘ব্যাবিলন’ নামের একটি ব্যবস্থা তৈরি করেছে, যা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা দ্বারা চালিত। ধরো, তোমার জ্বর হয়েছে, সঙ্গে কাশিও রয়েছে। তুমি ব্যাবিলনকে তোমার সমস্যা জানিয়ে জিজ্ঞেস করলে যে, তোমার কী করা উচিত? ব্যাবিলন তোমার কাছ থেকে আরও কিছু বিষয় জানতে চাইবে আর তারপর বলে দেবে তোমার ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়া উচিত নাকি দোকান থেকে ওষুধ কিনে খেলেই হবে।
তবে এ কথাটাও মনে রাখতে হবে, ব্যাবিলন কিন্তু কখনওই ডাক্তারের বিকল্প হিসেবে কাজ করছে না। সে শুধু তোমাকে বলে দিতে পারে, তোমার ডাক্তারের কাছে যাওয়ার প্রয়োজন আছে কি না। গবেষকরা বলছেন, এতে দু’টি সুবিধে হবে। প্রথমত, প্রত্যন্ত অঞ্চলে, যেখানে সহজে ডাক্তার পাওয়া যায় না, সেখানকার মানুষরা প্রাথমিক পরামর্শটা পাবে। দ্বিতীয়ত, মানুষ প্রাথমিকভাবে জানতে পারবে তার ডাক্তারের কাছে যাওয়ার প্রয়োজন আছে কি না, ফলে সকলে আর সামান্য সমস্যা নিয়ে ডাক্তারের কাছে যাবে না, এতে রোগীর সংখ্যা কমবে। আর ডাক্তারেরাও বেশি সময় নিয়ে, মন দিয়ে রোগীদের দেখতে পারবেন।
এখনও পর্যন্ত দেখা গিয়েছে, মোটামুটি ঠিকঠাক ভাবেই রোগ নির্ণয় করতে পারছে ব্যাবিলন। তবে এটা অবশ্যই মনে রাখতে হবে, খুব জটিল কোনও সমস্যা দেখা দিলে কিন্তু ডাক্তারের বিকল্প ব্যাবিলন নয়!