issue_cover
x

prani-jogot-4.7.2019-img1 কর্ণাটকের বন্দিপুরে অভয়ারণ্যের মাঝখান দিয়ে গিয়েছে ওয়ানাড-বন্দিপুর রোড। সম্প্রতি সেই রাস্তা ধরে বাইকে করে আশপাশের জঙ্গলের ছবি তুলতে-তুলতে যাচ্ছিলেন দুই যুবক। বাইকের পিছনে বসে যিনি ভিডিয়ো করতে-করতে যাচ্ছিলেন, তিনি হঠাৎই খেয়াল করেন, বাইকের পিছু-পিছু দৌড়ে তাঁদের ধাওয়া করেছে বড়সড় একটা ডোরাকাটা বাঘ! আতঙ্কে তিনি তাঁর সঙ্গীকে বাইক দ্রুত ছোটাতে বললে একসময় বাঘ পিছিয়ে পড়ে রণে ভঙ্গ দেয়। ফিরে যায় জঙ্গলের ভিতরে। যুবক দু’জন জোর বাঁচা বেঁচে গিয়েছেন, সন্দেহ নেই। কিন্তু ঘটনার ভিডিয়ো প্রকাশ্যে আসার পর নিন্দেয় সরব হয়েছেন দেশের পশুপ্রেমীরা। যে জঙ্গলকে অভয়ারণ্য হিসেবে গড়ে তোলা হয়েছে, তার মধ্য দিয়েও রাস্তা রাখার কী দরকার, কেন অন্তত রাত্রিবেলাটুকু এই রাস্তাগুলোয় যানবাহন চলাচল নিষিদ্ধ করা হচ্ছে না, এমন সব প্রশ্ন তুলেই সরব হয়েছেন তাঁরা। সত্যিই তো। একে তো আমরা জঙ্গল কেটেকুটে সাফ করে, বন্যপ্রাণীদের মেরেধরে পৃথিবীটাকে যথেষ্ট বিচ্ছিরি করে তুলেইছি। যে একটুখানি জায়গা শুধু ওদের জন্য আলাদা করে রাখা, সেখানেও গিয়ে ওদের বিরক্ত না করলেই নয়?